চীনের গুয়াংজুতে ফ্লাইট চালু ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের

April 27, 2018, 6:13 PM, Hits: 468

চীনের গুয়াংজুতে ফ্লাইট চালু ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের

ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স বাংলাদেশি বিমানসংস্থা হিসেবে প্রথমবারের মতো চীনের অন্যতম বাণিজ্যিক শহর গুয়াংজুতে ফ্লাইট শুরু করেছে। ফ্লাইটসূচী অনুযায়ী অনটাইম ফ্লাইট পরিচালনার রেকর্ড বজায় রেখে গতকাল বৃহস্পতিবার রাত ১০টা ১০মিনিটে প্রথমবারের মতো চীনের গুয়াংজুর উদ্দেশ্যে ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে বিএস-৩২৫ ফ্লাইটটি ছেড়ে যায়।

ক্যাপ্টেন মাসুদ ও ক্যাপ্টেন ইলিয়াস এর নেতৃত্বে মোট ১৫১ জন যাত্রী ও ৯ জন কেবিন ক্রু, পাইলট ও ইঞ্জিনিয়ার নিয়ে ফ্লাইটটি যাত্রা শুরু করে। ঢাকা-গুয়াংজু উদ্বোধনী ফ্লাইট শুরুর পূর্বে দোয়া পরিচালনা করা হয়। এ সময়ে ফ্লাইটের যাত্রী ও ইউএস-বাংলার ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন। পুনরায় আজ শুক্রবার নির্ধারিত সময় ভোর ৫টায় গুয়াংজু থেকে ২৩ জন যাত্রী ও ৯ জন ক্রু নিয়ে সকাল ৭টা ১৩ মিনিটে ঢাকায় হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করে।

প্রাথমিকভাবে সপ্তাহে তিন দিন ঢাকা থেকে গুয়াংজু রুটে ফ্লাইট পরিচালিত হবে। অবকাঠামোগত সকল সূচক বিবেচনা করে সিভিল এভিয়েশন অথরিটি অব চায়না (সিএএসি) ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সকে চীনের গুয়াংজু রুটে ফ্লাইট পরিচালনার অনুমতি দিয়েছে।

ঢাকা-গুয়াংজু রুটে ওয়ানওয়ের জন্য সর্বনিম্ন ভাড়া ৩০ হাজার ৪শ' ৮ টাকা এবং রিটার্ন ভাড়া ৩৯ হাজার ৪শ' ৪২ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। ভাড়ায় সকল ধরণের ট্যাক্স ও সারচার্জ অন্তর্ভুক্ত। প্রাথমিকভাবে শনি, মঙ্গল, বৃহস্পতিবার ঢাকা থেকে রাত ১০টা ১০ মিনিটে গুয়াংজু এর উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাবে এবং গুয়াংজুর স্থানীয় সময় ভোর ৩টা ৫০ মিনিটে পৌঁছুবে। এছাড়া গুয়াংজু থেকে রবি, বুধ ও শুক্রবার স্থানীয় সময় ভোর ৫টায় ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসবে এবং সকাল সাড়ে ৭টায় ঢাকায় পৌঁছুবে।

ঢাকা-গুয়াংজু-ঢাকা রুটে ১৬৪ আসনের বোয়িং ৭৩৭-৮০০ এয়ারক্রাফট দিয়ে ফ্লাইট পরিচালিত হবে। বোয়িং ৭৩৭-৮০০ এয়ারক্রাফটে ৮টি বিজনেস ক্লাস, ১৫৬টি ইকোনমি ক্লাস এর আসন ব্যবস্থা রয়েছে। স্বল্প সময়ের মধ্যে দাম্মাম, জেদ্দা, রিয়াদ, আবুদাবি রুটে ফ্লাইট পরিচালনা শুরু করার পরিকল্পনা করছে ইউএস-বাংলা। বর্তমানে ইউএস-বাংলার বিমান বহরে  চারটি বোয়িং ৭৩৭-৮০০ এবং তিনটি ড্যাশ ৮-কিউ৪০০ এয়ারক্রাফট রয়েছে। এ বছরের মধ্যে আরো তিনটি বোয়িং ৭৩৭-৮০০ এবং তিনটি ড্যাশ৮-কিউ৪০০ এয়ারক্রাফট ইউএস-বাংলার বিমান বহরে যুক্ত করার পরিকল্পনা রয়েছে।

১৭ জুলাই ২০১৪ সালে যাত্রা শুরু করে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স বর্তমানে সকল অভ্যন্তরীণ রুট ছাড়াও আন্তর্জাতিক রুট সিঙ্গাপুর, কুয়ালালামপুর, ব্যাংকক, মাস্কাট, দোহা ও কলকাতায় ফ্লাইট পরিচালনা করছে। সপ্তাহে প্রায় ৩০০টির অধিক অভ্যন্তরীণ ও আন্তর্জাতিক রুটে ফ্লাইট পরিচালনা করে থাকে ইউএস-বাংলা। যাত্রা শুরু করার পর সাড়ে তিন বছরে প্রায় ৩৭ হাজার ফ্লাইট পরিচালনা করেছে, যা বাংলাদেশে বিমান চলাচলের ইতিহাসে একটি রেকর্ড। 

 
সর্বাধিক পঠিত
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ