পর্নো অভিনেত্রীর বিরুদ্ধে ট্রাম্পের মানহানি মামলা

March 22, 2018, 11:11 AM, Hits: 180

পর্নো অভিনেত্রীর বিরুদ্ধে ট্রাম্পের মানহানি মামলা

হ-বাংলা নিউজ :  পর্নো অভিনেত্রী স্টোর্মি ড্যানিয়েলস মুখ খোলায় মান গেছে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের। এ নিয়ে স্থানীয় সময় গতকাল শুক্রবার ক্যালিফোর্নিয়ার আদালতে মামলা হয়েছে। গোপন চুক্তি লঙ্ঘন করে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে সম্পর্ক নিয়ে মুখ খোলার কারণে মানহানি ঘটেছে বলে অভিযোগ করা হয়েছে ওই মামলায়।

মামলার অভিযোগে বলা হয়, অন্তত ২০ বার স্টোর্মি ড্যানিয়েলস চুক্তি লঙ্ঘন করেছেন। ট্রাম্পের আইনজীবী আদালতে আবেদন জানিয়েছেন, স্টোর্মিকে মানহানির খেসারত হিসেব ২০ মিলিয়ন ডলার শোধ করতে হবে।

ক্যালিফোর্নিয়ার আদালতে করা পৃথক দুটি মামলায় বলা হয়েছে, স্টোর্মি ড্যানিয়েলস (প্রকৃত নাম স্টেফানি ক্লিফোর্ড) চুক্তি গোপন রাখার শর্ত ভঙ্গ করেছেন। এর আগে গোপন চুক্তিতে নেওয়া ১ লাখ ৩০ হাজার ডলার ফেরত দেওয়ার কথাও বলা হয়েছে।

আদালতে করা মামলায় স্টোর্মি ড্যানিয়েলস অভিযোগ করেন, গোপন চুক্তিতে ছদ্মনামে ডোনাল্ড ট্রাম্পের সই করার কথা ছিল। সে জায়গাটি খালি পড়ে আছে। এতে চুক্তিটি আর চুক্তি হয়ে ওঠেনি। ট্রাম্পের সঙ্গে সম্পর্ক নিয়ে বিস্তারিত কথা বলতে চান স্টোর্মি।

যুক্তরাষ্ট্রের গণমাধ্যমে হইচই পড়ে যাওয়ার পর প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের পক্ষ থেকে নতুন একজন আইনজীবী মামলা করে বলেছেন, স্টোর্মি শর্ত ভাঙায় তাঁর মক্কেলের মানহানি ঘটেছে। ২০ মিলিয়ন ডলার ক্ষতিপূরণ দেওয়ার জন্য আদেশ চেয়েছেন তিনি। একই আদালতে পৃথক মামলায় প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের আইনজীবী স্টোর্মির করা মামলা ফেডারেল কোর্টে স্থানান্তরের আবেদন জানিয়েছেন।

ট্রাম্পের পক্ষ থেকে এই মামলা করার কারণটা অবশ্য আলাদা। পর্নো অভিনেত্রী স্টোর্মি ড্যানিয়েলস সিবিএস নিউজের বিখ্যাত ‘সিক্সটি মিনিটস’ অনুষ্ঠানে সাক্ষাৎকারে বসছেন বলে খবর বেরিয়েছে। বিখ্যাত সাংবাদিক এন্ডারসন কুপারের সঙ্গে ‘সিক্সটি মিনিটস’ অনুষ্ঠানে স্টোর্মি ড্যানিয়েলস কী বলবেন, কতটুকু বলবেন, সেদিকে তাকিয়ে আছে সবাই। ধারণা করা হচ্ছে, স্টোর্মি ড্যানিয়েলস যাতে ‘সিক্সটি মিনিটস’ অনুষ্ঠানে উপস্থিত হতে না পারেন, আইনের চাপে ফেলে সেই চেষ্টাই চালাচ্ছেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের আইনজীবীরা। আদালত থেকে অস্থায়ী কোনো নিষেধাজ্ঞা আসার আশঙ্কার কথাও মার্কিন গণমাধ্যমে প্রচার ও প্রকাশ করা হচ্ছে।

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের আইনজীবীদের আদালত স্থানান্তরের আবেদনও আরেকটি কৌশল। ফেডারেল আদালতে এ ধরনের মামলা প্রকাশ্য যুক্তিতর্কের বদলে সমঝোতার মাধ্যমে নিষ্পত্তির সুযোগ বেশি থাকে। ট্রাম্পের আইনজীবীরা চান না, মামলার বিবরণ আর প্রকাশ্য যুক্তিতর্কে ট্রাম্প ও স্টোর্মির সম্পর্কের কথা আরও বেশি জানাজানি হোক। 

 
সর্বাধিক পঠিত
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ